দেওভোগে যুবক হত্যার ঘটনায় মামলা: গ্রেফতার ৩


এসএস রিপোর্ট: প্রভাব বিস্তার কে কেন্দ্র করে ফতুল্লার দেওভোগে প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত ইমন(২১)হত্যাকান্ডের ঘটনায় নিহতের ভাই সবুজ বাদী হয়ে ২৬ জনের নাম উল্লেখ্য সহ অজ্ঞাতনামা আরো ১০-১২ জনকে আসামী দায়ের করে ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন। নিহত ইমন ফতুল্লার পশ্চিম দেওভোগের দেলোয়ারের পুত্র।

 


এ ঘটনায় পুলিশ তিন জনকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃতরা হলো ফতুল্লা মডেল থানার পশ্চিম দেওভোগের দেলোয়ার লিটনের  পুত্র হান্নান  (২২),একই এলাকার বাবুলের পুত্র রাকিব(২১) ও সুমনের পুত্র রুজেল(২৫)।

 

বাদীর লিখিত এজাহারের ভিত্তিতে জানা যায়,বাদীর ছোট ভাই নিহত ইমন স্থানীয় একটি হোসিয়ারী কারখানায় কাজ করে।ঘাতক চক্রের সদস্যরা স্থানীয় মহলে নানা অপরাধের পাশাপাশি মাদক ব্যবসার সাথ জড়িত। ঘাতক চক্র তার ভাইকে তাদের সাথে মাদক ব্যবসা সহ তাদের দলে সক্রিয় হয়ে কাজ করার জন্য তাগিদ দিয়ে আসছিলো।

কিন্তু তার ভাই তাদের প্রস্তাব প্রত্যাখান করে তাদের অপরাধমূলক কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করে আসছিলো।ফলে তারা তার ভাইয়ের উপর ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে।

আরও পড়ুন: সাকিবের দুর্দান্ত লড়াইয়ে টাইগারদের সিরিজ জয়

 

শনিবার সন্ধ্যায় তার ছোট ভাই নিজ কর্মস্থল থেকে বাসায় ফিরে এসে খাবার খেয়ে বাড়ীর পাশে হাজীর মাঠ গিয়ে বন্ধুদের সাথে গল্প করছিলো। রাত আটটার দিকে ঘাতক চক্রের সদস্যরা দেশীয় অস্ত্র- সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে তার ভাইয়ের উপর হামলা চালিয়ে তাকে কুপিয়ে হত্যা করে।

 

এ বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানার ইনচার্জ রকিবুজ্জামান জানান,নিহতের বড় ভাই বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছে। এজাহারভুক্ত তিন আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন।

 

মন্তব্যসমূহ (০)


Lost Password


মন্তব্য করতে নিবন্ধন করুন